পদত্যাগ করলেন শ্রীলঙ্কার প্রধানমন্ত্রী

10

দেশজুড়ে বিক্ষোভ তীব্রতর হওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে পদত্যাগ করলেন শ্রীলঙ্কার প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপক্ষে। আজ সোমবার প্রধানমন্ত্রীর এই পদত্যাগের মধ্য দিয়ে সংকটাপন্ন দেশটিতে নতুন মন্ত্রিসভা গঠনের পথ প্রশস্ত হবে বলে ধারণা করছেন বিশ্লেষকেরা।

শ্রীলঙ্কার পত্রিকা ডেইলি মিররের প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, গত শুক্রবার প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষে দেশের চলমান রাজনৈতিক সংকটের সমাধান হিসেবে কয়েক দিন আগের একটি বিশেষ বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীকে পদত্যাগ করার অনুরোধ জানান।

এর আগে বিরোধী দল সামগী জনা বালাওয়েগয়া (এসজেবি) নিশ্চিত করেছে, তাদের নেতা সাজিথ প্রেমাদাসা অন্তর্বর্তী সরকারে প্রধানমন্ত্রীর পদ গ্রহণ করতে রাজি নন।

আজ সকালে বিক্ষোভকারীরা প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপক্ষকে পদত্যাগ না করার আহ্বান জানিয়ে তাঁর সরকারি বাসভবন টেম্পল ট্রির বিপরীতে একটি বিক্ষোভ করে।

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকের পর পরই তাঁরা টেম্পল ট্রির কাছে সরকারবিরোধী বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। এতে আহত অন্তত ১৬ জনকে কলম্বো ন্যাশনাল হসপিটালে ভর্তি করা হয়েছে।

এই ঘটনার পর প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপক্ষে সাধারণ জনগণকে সংযম অবলম্বনের আহ্বান জানিয়ে একটি টুইট করার পরেই পদত্যাগের ঘোষণা দেন।

মাহিন্দা রাজাপক্ষে টুইটে বলেন, ‘দেশে এখন অতি আবেগে সবাই ভাসছে। আমি আমাদের সাধারণ জনগণকে সংযম অবলম্বনের জন্য অনুরোধ করছি। মনে রাখবেন, সহিংসতা শুধু সহিংসতার জন্ম দেয়। আমরা যে অর্থনৈতিক সংকটের মধ্যে আছি তার একটি বাস্তবসম্মত সমাধান প্রয়োজন। এই প্রশাসন এই সমাধান করতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।’

মাহিন্দার টুইটের প্রতিক্রিয়ায় শ্রীলঙ্কার সাবেক ক্রিকেটার কুমার সাঙ্গাকারা লিখেছেন, ‘শুধু সহিংসতা আপনার সমর্থকদের দ্বারা সংঘটিত হয়েছে—ক্যাডার এবং গুন্ডারা শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভকারীদের আক্রমণ করার আগে আপনার অফিসে এসেছিল।’

বৈদেশিক মুদ্রার ঘাটতির কারণে শ্রীলঙ্কা ভয়াবহ অর্থনৈতিক সঙ্কটে পড়েছে। জ্বালানি, খাদ্য এবং ওষুধের মতো প্রয়োজনীয় দ্রব্যের সরবরাহে চরম ঘাটতি দেখা দিয়েছে। সরকার ও আইন প্রণেতাদের জরুরি সমাধান খোঁজার আহ্বান জানিয়ে কয়েকদিন ধরে দেশব্যাপী বিক্ষোভ চলছে।

Comments
[covid19 country="Bangladesh" title="Bangladesh"]