ইলিয়াস আলীকে খুঁজে পেতে চেষ্টা চলছে : র‍্যাব

12

র‍্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন বলেছেন, ‘বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ইলিয়াস আলীকে গুম করার সঙ্গে র‍্যাব জড়িত নয়। বরং ইলিয়াস আলীকে যখন থেকে পাওয়া যাচ্ছিল না, ওনার স্ত্রী যখন আমাদের কাছে এসেছেন, আমরা তাঁকে সর্বোচ্চ আইনি সহযোগিতা দিয়েছি। ইলিয়াস আলীকে এখনও খুঁজে পেতে চেষ্টা করছে র‍্যাব।’

২০১২ সালের ১৭ এপ্রিল রাতে রাজধানীর বনানীর রাস্তা থেকে ইলিয়াস আলী ও তাঁর গাড়িচালক আনসার আলীকে অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিরা তুলে নিয়ে যান। পরে পরিত্যক্ত অবস্থায় গাড়িটি উদ্ধার করে পুলিশ। এর পর থেকেই তাঁরা নিখোঁজ।

এ ঘটনা নিয়ে চলতি মাসের ১৭ এপ্রিল সুইডেনভিত্তিক সংবাদমাধ্যম নেত্র নিউজ ইলিয়াস আলীর ‘গুম’ হওয়া নিয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে। প্রতিবেদনে সুনির্দিষ্টভাবে তিন কর্মকর্তার নামও প্রকাশ করে নেত্র নিউজ।

ওই নিউজের প্রসঙ্গ টেনে আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর কারওয়ান বাজারের র‍্যাব মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে খন্দকার আল মঈনের কাছে ইলিয়াস আলীর গুম সংক্রান্তে র‍্যাবের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন করা হয়।

প্রশ্নের জবাবে খন্দকার আল মঈন বলেন, ‘নেত্র নিউজের যে খবরটির কথা আপনারা বলেছেন, সেখানে যেভাবে তথ্য-উপাত্ত উপস্থাপন করা হয়েছে, র‍্যাব মনে করে এটা সম্পূর্ণভাবে ভিত্তিহীন। দেখুন, র‍্যাব একটি আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। আমাদের যত অভিযান তা আইন মেনে পরিচালনা করি। এখানে যেসব তথ্য–উপাত্ত দেওয়া হয়েছে, তা সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন।’

খন্দকার আল মঈন আরও বলেন, ‘ইলিয়াস আলীর স্ত্রী যখন-যেখানে তাঁর স্বামী থাকতে পারেন বলে সম্ভাবনার কথা জানিয়েছেন, তখনই র‍্যাব তাঁকে সহযোগিতা দিয়েছে। এখনো র‍্যাব তাঁকে সহযোগিতা করছে। কেউ কোনো তথ্য দিলে র‍্যাব এখনো সেখানে যাচ্ছে। কারণ, এটা আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর দায়িত্ব। আমরাও চেষ্টা করেছি।’

ইলিয়াস আলী ‘নিখোঁজের’ এক দশক উপলক্ষে গত সোমবার রাজধানীর গুলশানের একটি হোটেলে আলোচনা সভার আয়োজন করে বিএনপি। ‘ইলিয়াস আলীসহ গুমের শিকার ব্যক্তিদের ফিরিয়ে দাও’ শিরোনামের এই আলোচনা সভায় তাহসিনা রুশদী বলেন, আইন প্রয়োগকারী সংস্থার লোকেরাই যে ইলিয়াস আলীকে তুলে নিয়ে গেছেন, এটা নিশ্চিত।’

Comments
[covid19 country="Bangladesh" title="Bangladesh"]