অনূর্ধ্ব-১৯ এশিয়া কাপের ফাইনালে রানার্সআপ বাংলাদেশ

10

শেষ পর্যন্ত ৫ রানে হেরে স্বপ্ন ভঙ্গ হলো যুবাদের। অনূর্ধ্ব-১৯ এশিয়া কাপের ফাইনালে শিরোপার খুব কাছে গিয়েও বাংলাদেশকে হারতে হলো। ৩২ ওভারে ১০৬ রানে থামে ভারতের ইনিংস। ১০৭ রানের লক্ষে ব্যাট করতে নেমে ১০১ রানে অলআউট হয়ে যায় বাংলাদেশের যুবারা।

এর আগে এশিয়া কাপের ফাইনালে টস জিতে ব্যাট করতে নামে ভারত। শুরু থেকেই যুবা টাইগারদের বোলিং তোপের মুখে পড়ে তারা। ৩ রানে প্রথম উইকেটের পতন হয়। সাজঘরে ফিরেন ওপেনার অর্জুন আজাদ। এরপর আরো দুটি উইকেটের পতন হয়। তিন উইকেটে সংগ্রহ দাঁড়ায় ৮।

এরপর কিছুটা বিরতি দিয়ে এক ওভারে দুটি উইকেট শিকার করেন শামিম। বাংলাদেশের বোলারদের সামনে কিছুটা সময় টিকে ছিলেন কেবল ধ্রুব জুরেল। ৫৭ বলে ৩৩ রান করেন। এ সময় তাকে সঙ্গ দেন শ্বাশত রাওয়াত। দলীয় ৫৩ রানে এ জুটির ভাঙন ধরান শামিম। ১৯ রানে রাওয়াতকে সাজঘরে ফেরান তিনি। পরের ওভারে জুরেলকে।

অষ্টম উইকেটটি শিকার করেন শাহীন আলম। সুশান্ত মিশরাকে ৩ রানে মাঠ ছাড়া করেন। বাকি দুটি উইকেট নেন মৃত্যুঞ্জয়। সর্বোচ্চ ৩৭ রান করা কারান লালকে সাজঘরে ফেরান তিনি। এরপর বিদ্যাধর পাটেলকে শূন্যতে বিদায় করেন। ৩২ ওভারে ১০৬ রানে থামে ভারতের ইনিংস।

বাংলাদেশ ৫০ ওভারে মাত্র ১০৭ রানের লক্ষে ব্যাট করতে নামে। কিন্তু এ ছোট লক্ষ্যটিকেই কঠিন বানিয়ে ফেলেছিল যুবারা। মাত্র ১৩ রানে তিন উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে বাংলাদেশ। ১০৭ রানের স্বল্প লক্ষ্য নিয়ে ব্যাট করতে নামে তারা। তিন রানে প্রথম উইকেটের পতন হয়। দ্বিতীয় ওভারে দুটি উইকেট হারায় বাংলাদেশের যুবারা। এরপর নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারিয়ে সহজ লক্ষ কঠিন হয়ে যায়। আর ১০১ রানেই সব কয়টি উইকেট হারিয়ে রানার্সআপ হয় বাংলাদেশ দল।