আসাম ওকাশ্মীর নিয়ে জাতিসংঘের উদ্বেগ

7

জাতিসংঘের মানবাধিকার কাউন্সিলের ৪২তম অধিবেশনে কাশ্মীর ও আসামের পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়েছে। সোমবার (৯ সেপ্টেম্বর) জেনেভায় জাতিসংঘ সদর দফতরে উদ্বোধনী বক্তব্যে জাতিসংঘের মানবাধিকার কাউন্সিলের সভাপতি মিশেল বাচলেট বলেন, “ভারত সরকারের মানবাধিকারের উপর সাম্প্রতিক পদক্ষেপের প্রভাব নিয়ে আমি গভীরভাবে উদ্বিগ্ন। কাশ্মীরে গত ৩৫ দিন ধরে ইন্টারনেট যোগাযোগ এবং শান্তিপূর্ণ সমাবেশে বিধি-নিষেধ এবং স্থানীয় রাজনৈতিক নেতা ও কর্মীদের আটকে রাখাসহ সাধারণ কাশ্মীরীদের জীবনযাপন কষ্টের মধ্যে পড়েছে।

তিনি বলেন, যদিও আমি ভারত ও পাকিস্তান সরকারকে মানবাধিকারকে সম্মানিত ও সুরক্ষিত করার জন্য অনুরোধ করে চলেছি। আমি বিশেষ করে ভারতের কাছে কাশ্মীরের বর্তমান অচলাবস্থা কাটিয়ে উঠতে জরুরি অবস্থা তুলে নেওয়ার আহ্বান জানাই।

মৌলিক পরিষেবাসহ মানুষের অধিকার নিশ্চিত করার জন্য আবেদন করেছি। এটা গুরুত্বপূর্ণ যে কাশ্মীরের জনগণের সাথে পরামর্শ করে কিছু সিদ্ধান্ত গ্রহণ করলেই তা তাদের ভবিষ্যতের উপর প্রভাব ফেলবে।

মিসেস ব্যাচলেট আরও বলেন, আসামের সাম্প্রতিক জাতীয় নাগরিক নিবন্ধন (এনআরসি)যাচাইকরণ প্রক্রিয়া ব্যাপক অনিশ্চয়তা ও উদ্বেগের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। ৩১ আগস্ট প্রকাশিত চূড়ান্ত তালিকা থেকে প্রায় ১.৯ মিলিয়ন মানুষকে বাদ দেওয়া হয়েছে।

ভারত সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, আপিল প্রক্রিয়া চলাকালীন যথাযথ প্রক্রিয়া নিশ্চিত করা, নির্বাসন বা আটকে রাখা রোধ করা এবং মানুষকে রাষ্ট্রহীনতার হাত থেকে রক্ষা করা নিশ্চিত করার জন্য আবেদন করেছি।