ডেঙ্গু চিকিৎসায় স্বাস্থ্যখাতের অবদান স্মরণীয় হয়ে থাকবে:স্বাস্থ্যমন্ত্রী

3

নিজস্ব প্রতিবেদক: স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, ডেঙ্গু প্রকোপকালীন সময়ে স্বাস্থ্যখাতে কর্মরত প্রতিটি চিকিৎসক, নার্স থেকে শুরু করে গোটা স্বাস্থ্যখাতের যে ত্যাগ ও শ্রম তাকে কোনভাবেই খাটো করে দেখার অবকাশ নাই। ডেঙ্গু প্রকোপ নিয়ে যখন দেশে অনেকেই আতংকিত রয়েছে, সে সময় স্বাস্থ্য সেবার সাথে সংশ্লিষ্ট চিকিৎসক, নার্সসহ সকলের ঈদের ছুটি বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। তাঁরা তাদের ঈদের ছুটি বন্ধ হওয়াকে হাসিমুখে মেনেও নিয়েছে। যেভাবে চিকিৎসক, নার্সরা তাঁদের নিজেদের জীবন ঝুকিতে নিয়েও ডেঙ্গু রোগের চিকিৎসা কাজ মনোযোগ সহকারে চালিয়ে যাচ্ছে তাতে তাঁদের অবদানকে জাতি চিরদিন কৃতজ্ঞচিত্তেই স্মরণ রাখবে।

বুধবার রাজধানীর মুগদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে এডিশ মশাবাহিত ডেঙ্গু জ্বরের যথোপযুক্ত চিকিৎসা, নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ শীর্ষক বৈজ্ঞানিক সেমিনারে এসব কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরো বলেন, মুগদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মোট শয্যা সংখ্যা মাত্র ৫০০টি অথচ বর্তমানে এখানে অসুস্থ রোগী আছে ১১০০ এরও বেশি। সুতরাং হাসপাতালটিতে শয্যা সংখ্যা আরও বৃদ্ধি করার প্রয়োজনীয়তা রয়েছে।

বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন-ঢাকা-৯ আসনের সংসদ সদস্য সাবের হোসেন চৌধুরী, বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের মহাসচিব ডা. মো. ইহতেশামুল হক চৌধুরী প্রমূখ।

অনুষ্ঠান শেষে স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগীদের দেখতে যান ও তাঁদের চিকিৎসা সংক্রান্ত খোজখবর নেন।