শান্তর ব্যাটে ক্যারিয়ারের প্রথম ডাবল সেঞ্চুরি

5

বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগে রানের বন্যা বইয়ে দিচ্ছেন জাতীয় দলের খেলোয়াড়রা। ট্রিপল সেঞ্চুরি করে ব্রাডম্যানের পাশে নাম লেখিয়েছেন জাতীয় দলের ড্যাশিং ওপেনার তামিম ইকবাল।

এরপর পাক সফরে না যাওয়া ক্রিকেটার মি. ডিপেন্ডেবল মুশফিকুর রহিম মাঠে ফিরেই ঝড়ো শতক হাঁকান।

এবার যেন তাদের উত্তরসূরি হিসেবে যোগ দিলেন জাতীয় দলের বাঁহাতি মিডলঅর্ডার ব্যাটসম্যান নাজমুল হোসেন শান্ত।

বিসিএলে টেস্ট ক্যারিয়ারে নিজের প্রথম ও একমাত্র ডাবল সেঞ্চুরি হাঁকালেন তিনি।

রোববার বিসিএলের তৃতীয় রাউন্ডের ম্যাচে কক্সবাজারে শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামের অ্যাকাডেমি মাঠে ছক্কা হাঁকিয়েই ক্যারিয়ারের প্রথম দ্বিশতকে পৌঁছান নাজমুল হোসেন শান্ত।

গতকাল দক্ষিণাঞ্চলে বিপক্ষে ১২২ রানের ঝকঝকে ইনিংস খেলে অপরাজিত ছিলেন শান্ত।

আর মধ্যাঞ্চল তার ব্যাটের দিকেই তাকিয়ে ছিল। সে প্রতিদানও দিয়েছেন শান্ত।

দ্বিতীয় দিনেই স্কোরবোর্ডে জমা করা ৩৩০ রানের লিডকে ধরাছোঁয়ার বাইরে নিয়ে গেলেন তিনি।

দক্ষিণাঞ্চলের বোলার শফিউল ইসলাম, আব্দুর রাজ্জাক, মেহেদি হাসান ও নাসুম আহমেদকে নাকানিচুবানি খাইয়ে ২৯১ বল খেলে ডাবল সেঞ্চুরি করেছেন শান্ত।

এদিন ১৮২ থেকে দুই ছক্কায় ১৯৪ রানে পৌঁছে যান। একটি সিঙ্গেল নিয়ে স্ট্রাইক নিজের কাছে রাখেন। পরের ওভারে বিশাল এক ছক্কা হাঁকিয়ে দ্বিশতক তুলে নেন।

এই দ্বিশতক ২৩ চার ও ৩ ছক্কার মারে সাজিয়েছেন শান্ত।

ডাবল সেঞ্চুরি পূরণ করেও রানের তৃপ্তি মেটেনি শান্তর। তামিম ইকবালকে ছোঁয়ার বাসনায় উঠে পড়ে লাগেন। আরো আগ্রাসী ব্যাটিং শুরু করেন শান্ত। মাত্র ১৯ বলে ৫০ রান যোগ করে সবমিলিয়ে ৩০৭ বলে ২৫ চার ও ৯ ছক্কার মারে ক্যারিয়ারের প্রথম আড়াইশ রানের মাইলফলক ছুঁয়ে ফেলেন শান্ত।

তবে তামিমকে ছোঁয়ার সে সুযোগ হয়নি শান্তর। ৫০৬ রানের লিডের পরই ইনিংস ঘোষণা করেন অধিনায়ক শুভাগত হোম।