বিশেষ নাটকে ছন্দা-মৌটুসী

9
২৬ মার্চ আমাদের স্বাধীনতা দিবস। আর এই দিবসকে কেন্দ্র করে চ্যানেল আইতে প্রচারের জন্য নির্মিত হয়েছে বিশেষ নাটক ‘স্বপ্নমৃত্যু কিংবা ভালোবাসার গল্প’। নাটকটি নির্মাণ করেছেন সতীর্থ রহমান। নাটকের গল্প তারই। চিত্রনাট্য ও সংলাপ ইরাজ আহমেদের। নাটকে দুই বোন মিনু ও কাজলের চরিত্রে অভিনয় করেছেন গোলাম ফরিদা ছন্দা ও মৌটুসী বিশ্বাস।

এর মধ্যে রাজধানীর পুরোনো ঢাকার আগমসি লেনে একটি পুরোনো বাড়িতে নাটকটির দৃশ্যায়ণের কাজ শেষ হয়েছে। এর আগে সতীর্থ রহমানের নির্দেশনায় বহু নাটকে ছন্দা অভিনয় করলেও এবারই প্রথম সতীর্থ রহমানের নির্দেশনায় মৌটুসী বিশ্বাস কোনো নাটকে অভিনয় করেছেন।

নাটকটিতে অভিনয় প্রসঙ্গে গোলাম ফরিদা ছন্দা বলেন, ‘যেহেতু গল্প-ভাবনাটা সতীর্থর নিজের তাই নিজের মনের মতো গল্পটি ফুটিয়ে তোলার জন্য তার ভীষণ রকম চেষ্টা ছিল। মাঝে আট মাস কাজ করতে পারেনি সতীর্থ। কারণ, হাতে ব্যথা পেয়েছিল। যে কারণে অনেকটা সময় বিরতির পর একটি ভালো কাজ করার চেষ্টা তার মধ্যে ছিল। আর মৌটুসী আমাদের সঙ্গে প্রথম কাজ করেছে। ভীষণ সহযোগিতা করেছে মৌটুসী। গল্পটা ফুটিয়ে তুলতে তারও আন্তরিক চেষ্টা ছিল। সব মিলিয়ে আমরা একটি ভালো কাজ করার চেষ্টা করেছি। আশা করছি, দর্শকের কাছে কাজটি বেশ উপভোগ্য হবে।’

মৌটুসী বিশ্বাস বলেন, ‘সতীর্থ রহমান রুবেল ভাইয়ের নির্দেশনায় এবারই আমার প্রথম কাজ করা। মাঝে বেশ কিছুদিন তিনি অসুস্থ থাকায় কাজ করতে পারেননি বিধায় ফিরে এসে একটি চমৎকার কাজ দর্শককে উপহার দেবার খুব চেষ্টা ছিল তার মধ্যে। যেখানে আমরা শুটিং করেছি, খুব আরামদায়ক একটি জায়গা ছিল না সেটি। কিন্তু তারপরও আমরা সবাই আন্তরিকতা নিয়ে কাজ করেছি। সতীর্থদা প্রত্যেকের প্রতি খেয়াল রেখেছেন। যে কারণে আমরা কেউ কোনো চাপ অনুভব করিনি। একটি ভালো কাজ হবে, এটা আশা করা যায়।’

স্বাধীনতা দিবসের বিশেষ এই নাটকে সতীর্থ-ছন্দার দুই মেয়ে টাপুর-টুপুরের ছোটবেলার একটি ছবি ব্যবহার করা হয়েছে ছন্দা-মৌটুসীর ছোটবেলার চরিত্র হিসেবে। ছন্দা সর্বশেষ সতীর্থ রহমানেরই নির্দেশনায় দেশের বাইরে টানা কয়েকটি নাটকে অভিনয় করেছিলেন। শিগগিরই তিনি দীপ্ত টিভির জন্য সালাউদ্দিনের নির্দেশনায় নতুন একটি ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় করবেন। এদিকে মৌটুসী পারভেজ আমিনের পরিচালনায় ‘আগুন পাখি’ নামের একটি ধারাবাহিকে অভিনয় করছেন।