নিউমোনিয়া রোগে হল সংসদের সমাজসেবা সম্পাদকের মৃত্যু

8

লিভার সমস্যা, নিউমোনিয়া, শ্বাসকষ্ট এবং জ্বরে মৃত্যু হল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র মোহাম্মদ কাউছার হোসেনের। আজ সকাল (২৮শে নভেম্বর) ১০টা ২০ মিনিটে শমরিতা হাসপাতালে ডাক্তার তার মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেন।

কাউছার ইসলামের ইতিহাস বিভাগের মাস্টার্সের ছাত্র। তিনি মুক্তিযোদ্ধা জিয়াউর রহমান হল ছাত্র সংসদের সমাজসেবা সম্পাদক ছিলেন।

কাউছারের দুইটা কিডনিই নষ্ট হয়ে গিয়েছিল।লিভারের সমস্যাও ছিল কাউছারের। অনেকদিন ধরেই এই অসুখে ভুগছিলেন তিনি। প্রথমে মানিকগঞ্জ সদর হাসপাতালে তাকে ভর্তি করা হয়। পরে অসুস্থতা বেড়ে যাওয়ায় শমরিতা হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। গতকাল হঠাৎ কাউছারের অসুখ বেড়ে যায়। গত ২৪ ঘন্টা লাইফ সাপোর্টে ছিলেন তিনি। তবে বাঁচানো যায়নি তাকে।
আজ সকাল শমরিতা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

জিয়া হল ছাত্র সংসদের জিএস হাসিবুল হোসেন শান্ত বলেন, ‘গতকালকেও আমরা তাকে দেখে এসেছি। ডাক্তার বলেছিলেন ২৪ ঘন্টার মধ্যে কিডনি ইন্সটলম্যান্ট করতে না পারলে বাঁচানো যাবেনা।আমরা খুবই ব্যতিত তার মৃত্যুতে। ‘

তিনি আরো বলেন, আজ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদের জানাজার নামাজ অনুষ্ঠিত হবে। নির্দিষ্ট টাইমটা পরে জানিয়ে দেওয়া হবে।

কাউছারের মৃত্যুর সংবাদ শুনে মুক্তিযোদ্ধা জিয়াউর রহমান হলের প্রাধ্যক্ষ বলেন, ‘ আমরা প্রথমে ভেবেছিলাম খুব বেশি অসুস্থ না।তবে গতকাল কথা বলার পর জানলাম তার শরীরের অবস্থা বেশি খারাপ হয়ে যায়।আজকে সকালে তার মৃত্যুর খবর শোনে খারাপ লাগছে। আমার হলের হাউজ টিউটররা হাসপাতালে যাচ্ছেন। তবে এটা ন্যাচারাল মৃত্যু। ‘